পদ্মা সেতুর উদ্বোধন ঘিরে অন্তর্ঘাতের আশংকা রয়েছে :ওবায়দুল কাদের।

নিজস্ব প্রতিবেদকনিজস্ব প্রতিবেদক
  প্রকাশিত হয়েছেঃ  12:09 AM, 13 June 2022

পদ্মা সেতুর উদ্বোধন ঘিরে অন্তর্ঘাতের আশংকা রয়েছে বলে জানিয়েছেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের।গোয়েন্দাদের হাতে এ বিষয়ে কিছু খবর আছে জানিয়ে তিনি বলেন: এই নিয়ে আমাদের আগেও আশংকা ছিল, এখনও আছে। বিষয়টি নিয়ে তদন্ত করা হচ্ছে।আগামী ২৫ জুন পদ্মা সেতুর উদ্বোধনের আগে রোববার পদ্মা সেতুর মাওয়া ঘাট প্রান্তে এক সংবাদ সম্মেলনে সড়ক পরিবহন ও সেতু মন্ত্রী ওবায়দুল কাদের এসব কথা বলেন।এক প্রশ্নের জবাবে ওবায়দুল কাদের বলেন, পদ্মা সেতুর উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে বিশ্বব্যাংক, ডক্টর মোহাম্মদ ইউনূস, খালেদা জিয়াসহ সবাইকে আমন্ত্রণ জানানো হবে। জননেত্রী শেখ হাসিনা এরকমই নির্দেশ দিয়েছেন।

পদ্মা সেতু উদ্বোধন উপলক্ষ্যে মন্ত্রী বলেন, ২৫ জুন সকাল ১০টায় মাওয়া প্রান্তে কূটনৈতিকসহ বিভিন্ন শ্রেণী পেশার ব্যক্তিদের নিয়ে সুধী সমাবেশ করা হবে। এখানে পদ্মা সেতুর ফলক উন্মোচন করা হবে। বেলা ১১টার পর শেখ হাসিনা ছয় মিনিটে পদ্মা নদী পারি দিয়ে ওপারে আরেকটি ফলক উন্মোচন করবেন। তারপর কাঠালবাড়ীর সমাবেশে শেখ হাসিনা দেশবাসীর উদ্দেশ্যে বক্তব্য রাখবেন। তিনি জানান, আগামী ২৬ জুন সকাল ৬টা থেকে সেতু দিয়ে গাড়ী চলাচল করবে। পদ্মা সেতুর স্থায়ীত্ব ধরা হয়েছে ১০০ বছর।

পদ্মা সেতু আমাদের সামর্থ্য ও সক্ষমতার সেতু বলে জানান ওবায়দুল কাদের। তিনি বলেন, এই সেতু একদিকে সম্মান ও মর্যাদার প্রতীক, অন্যদিকে আমাদের যে অপমান করা হয়েছে তার প্রতিশোধের সেতু। এই সেতুর জন্য শুধু শেখ হাসিনাকে নয় বঙ্গবন্ধুর গোটা পরিবারকে টার্গেট করা হয়েছিল। পদ্মা সেতু বঙ্গবন্ধু কন্যা শেখ হাসিনার অসীম সাহসের সোনালী ফসল। তিনি বলেন, যতই সমালোচনা হয়েছে, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার কারণে আমাদের মনোবল ততোই সুদৃঢ় হয়েছে। কানাডার আদালতে প্রমাণ হয়েছে এখানে কোন দুর্নীতি হয়নি। বিশ্বব্যাংক আমাদের কাছে ক্ষমা চেয়েছে। যখন তারা ক্ষমা চায় ততদিনে আমাদের সেতুর কাজ শুরু করে দিয়েছি। ২১ জেলার গাড়ি ৬ মিনিটে পদ্মা সেতু পারি দিয়ে ঢাকায় ঢুকলে রাজধানীতে যানজট বাড়বে কিনা- এই প্রশ্নের জবাবে মন্ত্রী বলেন, পদ্মা সেতু নিয়ে সংশয় ছিল। সেটা হয়েছে। যানজটও আমরা জয় করতে পারবো।

সরেজমিনে পদ্মা সেতুর মাওয়া প্রান্তে গিয়ে দেখা যায়, পদ্মা সেতুর উদ্বোধনের লক্ষ্যে শেষ মুহূর্তের প্রস্তুতি চলছে । মূল সেতুর লাইট লাগানোর কাজ প্রায় শেষ পর্যায়ে। কিছু কিছু জায়গায় ধোয়া মোছার কাজ চলছে। পদ্মা সেতুর (মূল সেতু) দৈর্ঘ্য ৬ দশমিক ১৫ কিলোমিটার। দুই প্রান্তের উড়ালপথ (ভায়াডাক্ট) ৩ দশমিক ৬৮ কিলোমিটার। সব মিলিয়ে সেতুর দৈর্ঘ্য ৯ দশমিক ৮৩ কিলোমিটার। পদ্মা সেতু প্রকল্পের ব্যয় ধরা হয়েছে ৩০ হাজার ১৯৩ কোটি টাকা।