শপথ গ্রহণে থাক‌ছেন না ট্রাম্প, অনুষ্ঠানের আগেই ত্যাগ কর‌ছেন ওয়াশিংটন।

জয়‌বি‌ডিজয়‌বি‌ডি
  প্রকাশিত হয়েছেঃ  12:27 PM, 16 January 2021

যুক্তরাষ্ট্রের নবনির্বাচিত প্রেসিডেন্ট জো বাইডেনের শপথ গ্রহণ অনুষ্ঠানের আগেই ওয়াশিংটন ত্যাগ করবেন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। আর বিদায়ী অনুষ্ঠান ওয়াশিংটনের বাইরে জয়েন্ট বেইজ অ্যান্ড্রুজে করার পরিকল্পনা করেছেন তিনি।

২০ জানুয়ারি বুধবার শপথ নেবেন জো বাইডেন। ওই সকালেই ওয়াশিংটন ছেড়ে যাবেন ডোনাল্ড ট্রাম্প। এর পর ফ্লোরিডা অঙ্গরাজ্যে তার মার-এ-লাগো রিসোর্টে তিনি শুরু করবেন পরবর্তী জীবন। মার্কিন এক কর্মকর্তার বরাত দিয়ে শুক্রবার (১৫ জানুয়ারি) এ তথ্য জানিয়েছে বার্তা সংস্থা রয়টার্স।

যুক্তরাষ্ট্রের ক্ষমতা হস্তান্তর অনুষ্ঠানে প্রেসিডেন্টের উপস্থিত থাকা ঐতিহ্য হলেও ট্রাম্প শপথ গ্রহণ অনুষ্ঠানে অংশ নেবেন না বলে আগেই জানিয়ে দিয়েছেন। এর মধ্য দিয়ে যুক্তরাষ্ট্রের ইতিহাসে ট্রাম্প হবেন চতুর্থ প্রেসিডেন্ট যিনি ‘প্রেসিডেন্টের অভিষেক’ অনুষ্ঠানে উপস্থিত থাকবেন না।

ট্রাম্প তার বিদায়ী অনুষ্ঠান ওয়াশিংটনের বাইরে ম্যারিল্যান্ডে প্রেসিডেন্টকে বহনকারী উড়োজাহাজ এয়ারফোর্স ওয়ানের সদর দপ্তর জয়েন্ট বেইজ অ্যান্ড্রুজে করার পরিকল্পনা করেছেন। বিদায়ী অনুষ্ঠান শেষে ট্রাম্প ফ্লোরিডায় চলে যাবেন।

ভোট জালিয়াতি ও কারচুপির অভিযোগ প্রমাণ না করা সত্ত্বেও ক্যাপিটল ভবনে হামলার পর কোনঠাসা হয়ে পড়েন ট্রাম্প। এরপর শান্তিপূর্ণ ক্ষমতা হস্তান্তরের প্রতিশ্রুতি দেন তিনি।

তবে ৬ জানুয়ারি যুক্তরাষ্ট্রের পার্লামেন্ট ভবন ক্যাপিটলে হামলায় উসকানি দেওয়ার অভিযোগে ট্রাম্পকে কংগ্রেসের প্রতিনিধি পরিষদে অভিশংসিত করা হয়। দেশটির ইতিহাসে এই প্রথম কোন প্রেসিডেন্ট যিনি দ্বিতীয়বারের মতো অভিশংসিত হলেন। এর আগে ২০২০ সালে ক্ষমতার অপব্যবহারের অভিযোগে আরেকবার অভিশংসিত হয়েছিলেন ট্রাম্প।

গত ৩ নভেম্বর অনুষ্ঠিত মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে তিনি ভোট জালিয়াতির অভিযোগ আনেন। ভোটে কারচুপির অভিযোগ এনে প্রায় শতাধিক মামলার আবেদন করেন। তার কোনটিও প্রমাণ করতে পারেননি।

দেশটির বেশির ভাগ নাগরিক মনে করছেন যে, ভোটের পর হার স্বীকার না করে উল্টো কারচুপির অভিযোগ তুলে নির্বাচনকে বিতর্কিত করেছেন যুক্তরাষ্ট্রের ৪৫তম প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প।

আপনার মতামত লিখুন :