০৭:৩৬ অপরাহ্ন, বুধবার, ২৮ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ১৬ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

রাজশাহী থেকে ফাঁকা আসন নিয়ে ঢাকায় ফিরল পদ্মা এক্সপ্রেস ট্রেন

  • Reporter Name
  • Update Time : ০২:০৭:৪৮ পূর্বাহ্ন, রবিবার, ১৭ জুলাই ২০২২
  • 29

ঈদের ফিরতি টিকিটের জন্য যাত্রীদের ঘণ্টার পর ঘণ্টা যখন অপেক্ষা। তখন রাজশাহী রেলস্টেশন থেকে শতাধিক আসন ফাঁকা অবস্থায় পদ্মা এক্সপ্রেস ট্রেন ঢাকার উদ্দেশ্যে ছেড়ে যায়।

মঙ্গলবার (১২ জুলাই) বিকাল ৪টা ১০ মিনিটে রাজশাহী রেলওয়ে স্টেশন থেকে রাজধানীর কমলাপুর স্টেশনের উদ্দেশ্যে ছেড়ে আসে।

ট্রেন যাত্রীরা জানিয়েছেন, ট্রেন ছাড়ার পাঁচদিন আগে ঈদের ফিরতি টিকিট সংগ্রহ করার নিময় করে দেয় পশ্চিমাঞ্চল রেলওয়ে। যাত্রার পাঁচদিন আগে লম্বা লাইনে দাঁড়িয়েও অনেকেই টিকিট পান না। আবার অল্প সময়ের মধ্যে অনলাইনে বরাদ্দকৃত টিকিটও শেষ হয়ে যায়। এমন অভিজ্ঞতা রাজশাহী শত শত ট্রেন যাত্রীর।

রবিউল ইসলাম নামে ট্রেনের টিকিট কিনতে আসা এক ব্যক্তি জানান, ‘আজকে (১২ জুলাই) ঢাকা যাওয়ার জন্য পাঁচদিন আগে টিকিট কাটার জন্য এসেছিলাম। কিন্তু টিকেট না পেয়ে ফিরে গেছি। অথচ আজ হঠাৎ অনলাইনে ঢুকে দেখি অনেক সিট ফাঁকা। সঙ্গে সঙ্গে টিকিট কেটে নিলাম। এখন পদ্মা এক্সপ্রেস ট্রেনে ঢাকায় যাচ্ছি।’

আআখতারুজ্জামান নামে আরেক যাত্রী বললেন, ‘পদ্মা এক্সপ্রেস ট্রেনটি আজ ছেড়ে যাওয়ার ৫ মিনিট পূর্বে এসি ক্যাবিন, এসি চেয়ার ও শোভন শ্রেণির উল্লেখযোগ্য সংখ্যক আসন খালি দেখা গেছে। যেখানে টিকিটের জন্য মানুষের হাহাকার, রাতভর অপেক্ষাসহ নানামুখী বিড়ম্বনার শিকার শত শত যাত্রী। সেখানে ট্রেনের আসন খালি যাবে এটা কি ভাবা যায়? ট্রেন চলাচলে এবং আসন বরাদ্দে চরম দায়িত্বহীনতা ও কর্তব্যে অবহেলার উৎকৃষ্ট উদাহরণ এটি।’

পশ্চিমাঞ্চল রেলওয়ের জেনারেল ম্যানেজার (জিএম) অসীম কুমার তালুকদার বলেন, ‘পদ্মা এক্সপ্রেস ট্রেনটি শিডিউল ট্রেন ছিল না। ১৩ জুলাই (বুধবার) ও ১৪ জুলাই (বৃহস্পতিবার) যাত্রীর চাপ কমানোর জন্যই আজ (মঙ্গলবার) ট্রেনের ছুটি বাতিল করা হয়েছে। এজন্য হয়তো কিছু আসন ফাঁকা যেতে পারে।’

Tag :
About Author Information

একুশে ফেব্রুয়ারির প্রথম প্রহরে রাষ্ট্রপতি ও প্রধানমন্ত্রীর শ্রদ্ধা

রাজশাহী থেকে ফাঁকা আসন নিয়ে ঢাকায় ফিরল পদ্মা এক্সপ্রেস ট্রেন

Update Time : ০২:০৭:৪৮ পূর্বাহ্ন, রবিবার, ১৭ জুলাই ২০২২

ঈদের ফিরতি টিকিটের জন্য যাত্রীদের ঘণ্টার পর ঘণ্টা যখন অপেক্ষা। তখন রাজশাহী রেলস্টেশন থেকে শতাধিক আসন ফাঁকা অবস্থায় পদ্মা এক্সপ্রেস ট্রেন ঢাকার উদ্দেশ্যে ছেড়ে যায়।

মঙ্গলবার (১২ জুলাই) বিকাল ৪টা ১০ মিনিটে রাজশাহী রেলওয়ে স্টেশন থেকে রাজধানীর কমলাপুর স্টেশনের উদ্দেশ্যে ছেড়ে আসে।

ট্রেন যাত্রীরা জানিয়েছেন, ট্রেন ছাড়ার পাঁচদিন আগে ঈদের ফিরতি টিকিট সংগ্রহ করার নিময় করে দেয় পশ্চিমাঞ্চল রেলওয়ে। যাত্রার পাঁচদিন আগে লম্বা লাইনে দাঁড়িয়েও অনেকেই টিকিট পান না। আবার অল্প সময়ের মধ্যে অনলাইনে বরাদ্দকৃত টিকিটও শেষ হয়ে যায়। এমন অভিজ্ঞতা রাজশাহী শত শত ট্রেন যাত্রীর।

রবিউল ইসলাম নামে ট্রেনের টিকিট কিনতে আসা এক ব্যক্তি জানান, ‘আজকে (১২ জুলাই) ঢাকা যাওয়ার জন্য পাঁচদিন আগে টিকিট কাটার জন্য এসেছিলাম। কিন্তু টিকেট না পেয়ে ফিরে গেছি। অথচ আজ হঠাৎ অনলাইনে ঢুকে দেখি অনেক সিট ফাঁকা। সঙ্গে সঙ্গে টিকিট কেটে নিলাম। এখন পদ্মা এক্সপ্রেস ট্রেনে ঢাকায় যাচ্ছি।’

আআখতারুজ্জামান নামে আরেক যাত্রী বললেন, ‘পদ্মা এক্সপ্রেস ট্রেনটি আজ ছেড়ে যাওয়ার ৫ মিনিট পূর্বে এসি ক্যাবিন, এসি চেয়ার ও শোভন শ্রেণির উল্লেখযোগ্য সংখ্যক আসন খালি দেখা গেছে। যেখানে টিকিটের জন্য মানুষের হাহাকার, রাতভর অপেক্ষাসহ নানামুখী বিড়ম্বনার শিকার শত শত যাত্রী। সেখানে ট্রেনের আসন খালি যাবে এটা কি ভাবা যায়? ট্রেন চলাচলে এবং আসন বরাদ্দে চরম দায়িত্বহীনতা ও কর্তব্যে অবহেলার উৎকৃষ্ট উদাহরণ এটি।’

পশ্চিমাঞ্চল রেলওয়ের জেনারেল ম্যানেজার (জিএম) অসীম কুমার তালুকদার বলেন, ‘পদ্মা এক্সপ্রেস ট্রেনটি শিডিউল ট্রেন ছিল না। ১৩ জুলাই (বুধবার) ও ১৪ জুলাই (বৃহস্পতিবার) যাত্রীর চাপ কমানোর জন্যই আজ (মঙ্গলবার) ট্রেনের ছুটি বাতিল করা হয়েছে। এজন্য হয়তো কিছু আসন ফাঁকা যেতে পারে।’