1. [email protected] : নিজস্ব প্রতিবেদক :
  2. [email protected] : rahad :
ভারত-বাংলাদেশের সম্পর্ক এখন ‘বেডরুমের’: গয়েশ্বর | JoyBD24
সোমবার, ২৮ নভেম্বর ২০২২, ০৮:০০ পূর্বাহ্ন

ভারত-বাংলাদেশের সম্পর্ক এখন ‘বেডরুমের’: গয়েশ্বর

রিপোর্টারের নাম
  • প্রকাশিত: বৃহস্পতিবার, ২ জুন, ২০২২

বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য গয়েশ্বর চন্দ্র রায় বলেছেন, প্রতিবেশি দেশ ভারতের সাথে বাংলাদেশের সম্পর্ক এখন বিছানার সম্পর্ক, স্বামী স্ত্রীর সম্পর্ক। ভারত-বাংলাদেশের সম্পর্ককে এই পররাষ্ট্রমন্ত্রী বেডরুমে নিয়ে গেছেন। তবে, স্ত্রীর মর্যাদা দিতে চায় না ভারত, রক্ষিতা হিসেবে ট্রিট করছে।

রোববার (২৯ মে) দুপুরে ঢাকা রিপোর্টাস ইউনিটিতে ‘দেশ বাঁচাও মানুষ বাঁচাও’ আন্দোলনের ব্যানারে বাংলাদেশ- ভারত সম্পর্ক ও জাতীয় স্বার্থ- শিরোনামে আলোচনা সভায় বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য গয়েশ্বর চন্দ্র রায় এসব কথা বলেন।

গয়েশ্বর বলেন, ভারতের সাথে এখন বাংলাদেশের সম্পর্ক বিছানার সম্পর্ক, স্বামী স্ত্রীর সম্পর্ক। বাংলাদেশ ভারতের সম্পর্ককে বেডরুমে নিয়ে গেছেন এই পররাষ্ট্রমন্ত্রী। তবে ভারত স্ত্রীর মর্যাদা দিতে চায় না, এখন রক্ষিতা হিসেবে ট্রিট করছে। বিছানার সম্পর্ক আর বন্ধুত্ব এক কথা না। বন্ধুত্ব যে আমরা চাই, বন্ধুত্ব আমরা পাই কতটুকু?

তিনি আরও বলেন, বাংলাদেশের সাথে ভারতের এখন কোনো ধারাবাহিক সম্পর্ক নাই। ভারত একটি দল ও একজন ব্যক্তির সাথে বন্ধুত্বে আগ্রহী। ভারত মাঝেমাঝেই বিভিন্ন আবদার করে। তাদেরকে মনে রাখতে হবে যে, আবদার আর অধিকার এক জিনিস নয়।

গয়েশ্বর বলেন, ভারতকে ভাবতে হবে যে তারা বাংলাদেশের সাথে বন্ধুত্ব চায় কি না। বন্ধুত্ব চাইলে বাংলাদেশের মানুষের ভাবনাকে অবশ্যই সম্মান করতে হবে।

বাংলাদেশের রিজার্ভ চুরি হলো অথচ তা নিয়ে শেখ হাসিনার কোনো চিন্তা নেই। এখন বাংলাদেশের মালিক যদি শেখ হাসিনা হয়, তাহলে তো তার চিন্তা থাকবে। কিন্তু দেখুন, তার কোনো চিন্তা নেই। তার মানে তিনি নিশ্চয়ই জানেন যে এটা কোথায় যাচ্ছে বা কোথায় রাখা হচ্ছে। ধরেন, কোনো একটা জিনিস হারিয়ে গেলো কিন্তু দেখা গেলো যে ওই জিনিসের জন্য মালিকের কোনো মাথাব্যথা নাই। তখন বুঝতে হবে যে, মালিক নিজেই ওই জিনিসটি লুকিয়ে রেখে বাজার সাজিয়ে বসেছেন। এখানেও ব্যাপারটা তেমনই।

এদিকে একই দিনে নয়াপল্টনে বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে শহীদ প্রেসিডেন্ট জিয়াউর রহমানের ৪১ তম শাহাদাত বার্ষিকী উপলক্ষে এক অনুষ্ঠানে তিনি বলেন, এক দলীয় বাকশাল থেকে বহু দলীয় গণতন্ত্রে প্রবর্তন করায় শহীদ প্রেসিডেন্ট জিয়াউর রহমানকে সাধারণ মানুষ তাঁকে উপরে স্থান দিয়েছে। জিয়াউর রহমানকে শ্রেষ্ঠ করতে কাউকে ছোট বড় করতে হয় না। শুরু থেকে শেষ পর্যন্ত তার কর্মকান্ডের তুলনা সে নিজেই। আমরা যেন ভুল করে জিয়াউর রহমানের সাথে অন্য কারো তুলনা করতে না যাই। জিয়াউর রহমান চিরস্মরনীয় হয়ে থাকবেন।

নিউজটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো খবর..
© All rights reserved © 2012 joybd24
ডিজাইন ও কারিগরি সহযোগিতায়: Joybd24