০৪:৫৩ পূর্বাহ্ন, শুক্রবার, ০১ মার্চ ২০২৪, ১৭ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

দেশব্যাপী ঈদ উপলক্ষ্যে মহাসড়কে রাইড-শেয়ারিং চলাচলে বিধিনিষেধ

  • Reporter Name
  • Update Time : ১২:৪৯:১২ পূর্বাহ্ন, সোমবার, ৪ জুলাই ২০২২
  • 29

মোটরসাইকেল রাইড-শেয়ারিং

ঈদের আগে তিন দিন, ঈদের দিন এবং ঈদের পরে তিন দিন এই সাত দিন এক জেলা থেকে আরেক জেলায় মোটরসাইকেল চলাচল করা যাবে না বলে জানিয়েছেন সড়ক পরিবহন সচিব। রোববার (৩ জুলাই) বিকেলে সচিবালয়ে এ কথা জানান তিনি। এ ছাড়াও মহাসড়কে রাইড শেয়ারিংও করা যাবে না।

রোববার সচিবালয়ে সড়ক পরিবহন মন্ত্রণালয়ে অনুষ্ঠিত এক জরুরি সভা শেষে সড়ক পরিবহন সচিব এবিএম আমিন উল্লাহ নুরী এসব সিদ্ধান্তের কথা জানান।

এর আগে বাস মালিক-শ্রমিক সংগঠনের পক্ষ থেকে সরকারের কাছে ঈদে আন্তঃজেলা মোটরসাইকেল চলাচল বন্ধের দাবি জানায় এবং বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন কর্তৃপক্ষও (বিআরটিএ) সম্প্রতি দেশে মোটরসাইকেল দুর্ঘটনা ও প্রাণহানি বেড়ে যাওয়ায় মহাসড়কে মোটরসাইকেল চলাচল নিষিদ্ধ করার সুপারিশ করে।

সড়ক পরিবহন সচিব জানান, যৌক্তিক কারণ ছাড়া ঈদের আগে তিন দিন, ঈদের দিন এবং ঈদের পরে তিন দিন- এই সাত দিন এক জেলা থেকে আরেক জেলায় মোটরসাইকেল চলাচল নিষিদ্ধ করা হয়েছে। একই সময়ে দেশের সব মহাসড়কে রাইড শেয়ারিং করা যাবে না। কোনো জরুরি কারণে এক জেলা থেকে অন্য জেলায় যেতে হলে তা পুলিশকে জানাতে হবে। পুলিশের অনুমতি সাপেক্ষে এক জেলার মোটরসাইকেল অন্য জেলায় যেতে পারবে।

এবিএম আমিন উল্লাহ নুরী জানান, এই সিদ্ধান্তের বাইরে ঢাকার মোটরসাইকেল ঢাকায় চালাতে হবে। চট্টগ্রামের মোটরসাইকেল চট্টগ্রামে এবং বরিশালের মোটরসাইকেল বরিশালে চালাতে হবে।

অবিলম্বে এসব সিদ্ধান্ত অনুযায়ী পরিপত্র জারি করা হবে বলেও জানিয়েছেন সড়ক পরিবহন সচিব।

Tag :
About Author Information

জনপ্রিয় সংবাদ

একুশে ফেব্রুয়ারির প্রথম প্রহরে রাষ্ট্রপতি ও প্রধানমন্ত্রীর শ্রদ্ধা

দেশব্যাপী ঈদ উপলক্ষ্যে মহাসড়কে রাইড-শেয়ারিং চলাচলে বিধিনিষেধ

Update Time : ১২:৪৯:১২ পূর্বাহ্ন, সোমবার, ৪ জুলাই ২০২২

ঈদের আগে তিন দিন, ঈদের দিন এবং ঈদের পরে তিন দিন এই সাত দিন এক জেলা থেকে আরেক জেলায় মোটরসাইকেল চলাচল করা যাবে না বলে জানিয়েছেন সড়ক পরিবহন সচিব। রোববার (৩ জুলাই) বিকেলে সচিবালয়ে এ কথা জানান তিনি। এ ছাড়াও মহাসড়কে রাইড শেয়ারিংও করা যাবে না।

রোববার সচিবালয়ে সড়ক পরিবহন মন্ত্রণালয়ে অনুষ্ঠিত এক জরুরি সভা শেষে সড়ক পরিবহন সচিব এবিএম আমিন উল্লাহ নুরী এসব সিদ্ধান্তের কথা জানান।

এর আগে বাস মালিক-শ্রমিক সংগঠনের পক্ষ থেকে সরকারের কাছে ঈদে আন্তঃজেলা মোটরসাইকেল চলাচল বন্ধের দাবি জানায় এবং বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন কর্তৃপক্ষও (বিআরটিএ) সম্প্রতি দেশে মোটরসাইকেল দুর্ঘটনা ও প্রাণহানি বেড়ে যাওয়ায় মহাসড়কে মোটরসাইকেল চলাচল নিষিদ্ধ করার সুপারিশ করে।

সড়ক পরিবহন সচিব জানান, যৌক্তিক কারণ ছাড়া ঈদের আগে তিন দিন, ঈদের দিন এবং ঈদের পরে তিন দিন- এই সাত দিন এক জেলা থেকে আরেক জেলায় মোটরসাইকেল চলাচল নিষিদ্ধ করা হয়েছে। একই সময়ে দেশের সব মহাসড়কে রাইড শেয়ারিং করা যাবে না। কোনো জরুরি কারণে এক জেলা থেকে অন্য জেলায় যেতে হলে তা পুলিশকে জানাতে হবে। পুলিশের অনুমতি সাপেক্ষে এক জেলার মোটরসাইকেল অন্য জেলায় যেতে পারবে।

এবিএম আমিন উল্লাহ নুরী জানান, এই সিদ্ধান্তের বাইরে ঢাকার মোটরসাইকেল ঢাকায় চালাতে হবে। চট্টগ্রামের মোটরসাইকেল চট্টগ্রামে এবং বরিশালের মোটরসাইকেল বরিশালে চালাতে হবে।

অবিলম্বে এসব সিদ্ধান্ত অনুযায়ী পরিপত্র জারি করা হবে বলেও জানিয়েছেন সড়ক পরিবহন সচিব।