০৫:৩৯ পূর্বাহ্ন, সোমবার, ২৪ জুন ২০২৪, ৯ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

জামায়াতের সেক্রেটারিকে পুনরায় গ্রেফতার, আমিরের নিন্দা

  • Reporter Name
  • Update Time : ০১:৫১:৪৫ পূর্বাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ২ জুন ২০২২
  • 39

বাংলাদেশ জামায়াতে ইসলামীর সেক্রেটারি জেনারেল ও সাবেক এমপি অধ্যাপক মিয়া গোলাম পরওয়ারের জামিনের পর তৃতীয় বারের মতো আবারো তাকে গ্রেফতার দেখানোর ঘটনায় তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়েছেন বাংলাদেশ জামায়াতে ইসলামীর আমির ডা: শফিকুর রহমান।
বুধবার এক বিবৃতিতে তিনি এ প্রতিবাদ জানান। বিবৃতিতে তিনি বলেন, বাংলাদেশ জামায়াতে ইসলামীর সেক্রেটারি জেনারেল ও সাবেক এমপি অধ্যাপক মিয়া গোলাম পরওয়ারকে ২০২১ সালের ৬ সেপ্টেম্বর গ্রেফতারের পর মামলা দিয়ে কারাগারে পঠানো হয়। দেশের সর্বোচ্চ আদালত থেকে জামিন পাওয়ার পর কারাগার থেকে মুক্তির আগেই আরো দু’টা মামলা দিয়ে কারাগারে আটকিয়ে রাখা হয়। তিনি ওই মামলায় জামিন পাওয়ার পর তাকে মুক্তি না দিয়ে আরো তিনটি মিথ্যা মামলায় গ্রেফতার দেখানো হয়েছে।

আদালত থেকে জামিন পাওয়ার পর মুক্তি না দিয়ে মিথ্যা মামলা আবিষ্কার করে বারবার গ্রেফতারের ঘটনা দেশের আইন, সংবিধান এ মানবাধিকারের চরম লঙ্ঘন। এ ঘটনার মাধ্যমে সরকার অধ্যাপক মিয়া গোলাম পরওয়ারের মৌলিক অধিকারের ওপর হস্তক্ষেপ করছে। আমরা এর তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানাচ্ছি।
তিনি বলেন, দেশে মানবাধিকার, বাক-স্বাধীনতা হরণ, গণতান্ত্রিক অধিকারের ওপর নগ্ন হস্তক্ষেপের ঘটনায় আন্তর্জাতিক বিভিন্ন মানবাধিকার সংগঠন ও প্রতিষ্ঠান উদ্বেগ প্রকাশ করলেও সরকার সেদিকে কোনো ভ্রুক্ষেপ করছে না। তাদের ফ্যাসিবাদী আচরণ দিন দিন বেড়েই চলছে। সরকার দেশকে সার্বিকভাবে একটি সঙ্কটজনক পরিস্থিতির দিকে নিয়ে যাচ্ছে।

এ সময় তিনি অবিলম্বে অধ্যাপক মিয়া গোলাম পরওয়ারসহ গ্রেফতারকৃত জামায়াতে ইসলামীর সকল নেতা-কর্মীদের নিঃশর্তভাবে মুক্তি দেয়ার জন্য সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের প্রতি আহ্বান জানান।

Tag :
About Author Information

ভারতে ৩শ’ রুপির গয়না ৬ কোটিতে বিক্রি করে মার্কিন নারীর সঙ্গে প্রতারণা।

জামায়াতের সেক্রেটারিকে পুনরায় গ্রেফতার, আমিরের নিন্দা

Update Time : ০১:৫১:৪৫ পূর্বাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ২ জুন ২০২২

বাংলাদেশ জামায়াতে ইসলামীর সেক্রেটারি জেনারেল ও সাবেক এমপি অধ্যাপক মিয়া গোলাম পরওয়ারের জামিনের পর তৃতীয় বারের মতো আবারো তাকে গ্রেফতার দেখানোর ঘটনায় তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়েছেন বাংলাদেশ জামায়াতে ইসলামীর আমির ডা: শফিকুর রহমান।
বুধবার এক বিবৃতিতে তিনি এ প্রতিবাদ জানান। বিবৃতিতে তিনি বলেন, বাংলাদেশ জামায়াতে ইসলামীর সেক্রেটারি জেনারেল ও সাবেক এমপি অধ্যাপক মিয়া গোলাম পরওয়ারকে ২০২১ সালের ৬ সেপ্টেম্বর গ্রেফতারের পর মামলা দিয়ে কারাগারে পঠানো হয়। দেশের সর্বোচ্চ আদালত থেকে জামিন পাওয়ার পর কারাগার থেকে মুক্তির আগেই আরো দু’টা মামলা দিয়ে কারাগারে আটকিয়ে রাখা হয়। তিনি ওই মামলায় জামিন পাওয়ার পর তাকে মুক্তি না দিয়ে আরো তিনটি মিথ্যা মামলায় গ্রেফতার দেখানো হয়েছে।

আদালত থেকে জামিন পাওয়ার পর মুক্তি না দিয়ে মিথ্যা মামলা আবিষ্কার করে বারবার গ্রেফতারের ঘটনা দেশের আইন, সংবিধান এ মানবাধিকারের চরম লঙ্ঘন। এ ঘটনার মাধ্যমে সরকার অধ্যাপক মিয়া গোলাম পরওয়ারের মৌলিক অধিকারের ওপর হস্তক্ষেপ করছে। আমরা এর তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানাচ্ছি।
তিনি বলেন, দেশে মানবাধিকার, বাক-স্বাধীনতা হরণ, গণতান্ত্রিক অধিকারের ওপর নগ্ন হস্তক্ষেপের ঘটনায় আন্তর্জাতিক বিভিন্ন মানবাধিকার সংগঠন ও প্রতিষ্ঠান উদ্বেগ প্রকাশ করলেও সরকার সেদিকে কোনো ভ্রুক্ষেপ করছে না। তাদের ফ্যাসিবাদী আচরণ দিন দিন বেড়েই চলছে। সরকার দেশকে সার্বিকভাবে একটি সঙ্কটজনক পরিস্থিতির দিকে নিয়ে যাচ্ছে।

এ সময় তিনি অবিলম্বে অধ্যাপক মিয়া গোলাম পরওয়ারসহ গ্রেফতারকৃত জামায়াতে ইসলামীর সকল নেতা-কর্মীদের নিঃশর্তভাবে মুক্তি দেয়ার জন্য সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের প্রতি আহ্বান জানান।