০২:৩৬ পূর্বাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ৩০ মে ২০২৪, ১৫ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

ছাত্রদল নেতা নূরে আলমের জানাজা সম্পন্ন

  • Reporter Name
  • Update Time : ১০:৪৫:১৯ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ৪ অগাস্ট ২০২২
  • 38

ভোলা জেলা ছাত্রদল সভাপতি নূরে আলমের জানাজা সম্পন্ন হয়েছে। আজ বৃহস্পতিবার (৪ আগস্ট) নয়াপল্টনে দলের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ের সামনে এই জানাজা সম্পন্ন হয়।

জানাজা পূর্ব সমাবেশে বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেন, পিতার কাঁধে পূত্রের লাশ। এরচেয়ে যন্ত্রনার কিছু নাই। আমাদের ছেলে নুরে আলম ভোলা জেলা ছাত্রদলের সভাপতি। তাকে গুলি করে হত্যা করেছে এই ফ্যাসিস্ট আওয়ামী লীগ সরকারের পুলিশ বাহিনী। গুলি করে হত্যা করেছে স্বেচ্ছাসেবক দলের কর্মী আব্দুর রহিমকে। আরো ১৯ জন ঢাকায় বরিশাল হাসপাতালে মৃত্যুর সঙ্গে পাঞ্জা লড়ছে।

বিএনপি মহাসচিব বলেন, আজকে নতুন নয়, আওয়ামীলীগ সরকার ক্ষমতায় আসার পর একদলীয় শাসন পোক্ত করার জন্য ১৫ বছর ধরে ৬শ’ নেতাকর্মীকে গুম করেছে। ৩৫ লাখ নেতাকর্মীদের বিরুদ্ধে মামলা দিয়েছে।

এখন আর ক্রন্দন নয় জানিয়ে মির্জা ফখরুল বলেন, আমাদের জেগে উঠতে হবে। এই ভয়াবহ কর্তৃত্ববাদী জুলুম নির্যাতনকারী সরকারের হাত থেকে এই জাতিকে মুক্ত করতে হবে। এইজন্য প্রয়োজন সমগ্র জাতিকে ঐক্যবদ্ধ হওয়া। শান্তিপূর্ণভাবে গণআন্দোলন শুরু করে নুরে আলম এবং রহিমের হত্যার প্রতিশোধ নিবো।

আগামী ৫-৭ তারিখ পর্যন্ত শোক পালন করার জন্য বিএনপি সারাদেশে দলীয় কার্যালয়ে দলীয় পতাকা অর্ধনমিত করবে, কালো পতাকা উত্তোলন করবে। ৬ আগস্ট ছাত্রদল ঢাকায় সমাবেশ করবে, ৭ আগস্ট কৃষকদল সমাবেশ করবে, ৮ আগস্ট যুবদল, ১০ আগস্ট শ্রমিক দল, ১১ আগস্ট মহিলা দল এবং ১২ আগস্ট স্বেচ্ছাসেবক দলের উদ্যোগে সমাবেশ হবে বলেও জানান বিএনপি মহাসচিব।

এর আগে ৩১ জুলাই সারাদেশে লোডশেডিংয়ের প্রতিবাদে বিক্ষোভ কর্মসূচিতে পুলিশের গুলিতে আহত হন নুরে আলম। পরে তাকে রাজধানীর একটি হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় বুধবার (৩ আগস্ট) মৃত্যুবরণ করেন।

Tag :
About Author Information

দেশের ৮৭ উপজেলায় শান্তিপূর্ণ পরিবেশে ভোট গ্রহণ চলছে

ছাত্রদল নেতা নূরে আলমের জানাজা সম্পন্ন

Update Time : ১০:৪৫:১৯ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ৪ অগাস্ট ২০২২

ভোলা জেলা ছাত্রদল সভাপতি নূরে আলমের জানাজা সম্পন্ন হয়েছে। আজ বৃহস্পতিবার (৪ আগস্ট) নয়াপল্টনে দলের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ের সামনে এই জানাজা সম্পন্ন হয়।

জানাজা পূর্ব সমাবেশে বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেন, পিতার কাঁধে পূত্রের লাশ। এরচেয়ে যন্ত্রনার কিছু নাই। আমাদের ছেলে নুরে আলম ভোলা জেলা ছাত্রদলের সভাপতি। তাকে গুলি করে হত্যা করেছে এই ফ্যাসিস্ট আওয়ামী লীগ সরকারের পুলিশ বাহিনী। গুলি করে হত্যা করেছে স্বেচ্ছাসেবক দলের কর্মী আব্দুর রহিমকে। আরো ১৯ জন ঢাকায় বরিশাল হাসপাতালে মৃত্যুর সঙ্গে পাঞ্জা লড়ছে।

বিএনপি মহাসচিব বলেন, আজকে নতুন নয়, আওয়ামীলীগ সরকার ক্ষমতায় আসার পর একদলীয় শাসন পোক্ত করার জন্য ১৫ বছর ধরে ৬শ’ নেতাকর্মীকে গুম করেছে। ৩৫ লাখ নেতাকর্মীদের বিরুদ্ধে মামলা দিয়েছে।

এখন আর ক্রন্দন নয় জানিয়ে মির্জা ফখরুল বলেন, আমাদের জেগে উঠতে হবে। এই ভয়াবহ কর্তৃত্ববাদী জুলুম নির্যাতনকারী সরকারের হাত থেকে এই জাতিকে মুক্ত করতে হবে। এইজন্য প্রয়োজন সমগ্র জাতিকে ঐক্যবদ্ধ হওয়া। শান্তিপূর্ণভাবে গণআন্দোলন শুরু করে নুরে আলম এবং রহিমের হত্যার প্রতিশোধ নিবো।

আগামী ৫-৭ তারিখ পর্যন্ত শোক পালন করার জন্য বিএনপি সারাদেশে দলীয় কার্যালয়ে দলীয় পতাকা অর্ধনমিত করবে, কালো পতাকা উত্তোলন করবে। ৬ আগস্ট ছাত্রদল ঢাকায় সমাবেশ করবে, ৭ আগস্ট কৃষকদল সমাবেশ করবে, ৮ আগস্ট যুবদল, ১০ আগস্ট শ্রমিক দল, ১১ আগস্ট মহিলা দল এবং ১২ আগস্ট স্বেচ্ছাসেবক দলের উদ্যোগে সমাবেশ হবে বলেও জানান বিএনপি মহাসচিব।

এর আগে ৩১ জুলাই সারাদেশে লোডশেডিংয়ের প্রতিবাদে বিক্ষোভ কর্মসূচিতে পুলিশের গুলিতে আহত হন নুরে আলম। পরে তাকে রাজধানীর একটি হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় বুধবার (৩ আগস্ট) মৃত্যুবরণ করেন।