আজ দে‌শে ক‌রোনায় স‌র্বোচ্চ মৃত্যু ও সনা‌ক্তের রেকর্ড!

জয়‌বি‌ডিজয়‌বি‌ডি
  প্রকাশিত হয়েছেঃ  10:43 PM, 29 March 2021

বাংলাদেশে আজ সকাল আটটা পর্যন্ত ২৪ ঘণ্টায় করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে ৪৫ জনের মৃত্যু হয়েছে। করোনায় গত ৭ মাসের মধ্যে একদিনে এটাই সর্বোচ্চ সংখ্যক মৃত্যু। গত ২৪ ঘণ্টায় মৃতদের মধ্যে ৩০ জন পুরুষ ও ১৫ জন নারী। এ নিয়ে দেশে এখন পর্যন্ত করোনায় ৮ হাজার ৯৪৯ জনের মৃত্যু হয়েছে।

সর্বশেষ ২৪ ঘণ্টার হিসাবে নতুন করে ৫ হাজার ১৮১ জনের দেহে করোনা শনাক্ত হয়েছে, যা দেশে একদিনে সর্বোচ্চ শনাক্তের রেকর্ড। এ নিয়ে দেশে এ পর্যন্ত শনাক্তের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ৬ লাখ ৮৯৫ জন। দেশে ২৪ ঘণ্টায় ২৮ হাজার ১৯৫ জনের নমুনা পরীক্ষা হয়েছে।

সোমবার দুপুরে করোনা ভাইরাসের বিষয়ে স্বাস্থ্য অধিদফতরের প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়। প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়, ২৪ ঘণ্টায় সুস্থ হয়েছেন ২ হাজার ৭৭ জন। এ নিয়ে দেশে মোট সুস্থ হয়েছেন ৫ লাখ ৩৮ হাজার ১৮ জন হয়েছে।

এদিকে, দেশে করোনাভাইরাসের সংক্রমণ দ্রুত বেড়ে যাওয়ার পরিপ্রেক্ষিতে জরুরি সেবাপ্রতিষ্ঠান ছাড়া সব অফিস ও কারখানা অর্ধেক জনবল দ্বারা পরিচালনা, উপাসনালয়ে স্বাস্থ্যবিধি মানা, জনসমাগম সীমিত করা, গণপরিবহনে ধারণক্ষমতার অর্ধেক যাত্রী পরিবহনসহ ১৮ দফা নির্দেশনা দিয়ে প্রজ্ঞাপন জারি করেছে সরকার।

প্রজ্ঞাপনে বলা হয়, এসব সিদ্ধান্ত এখন থেকে সারা দেশে কার্যকর হবে এবং আগামী দুই সপ্তাহ পর্যন্ত তা কার্যকর থাকবে। প্রধানমন্ত্রীর মুখ্য সচিব আহমদ কায়কাউস স্বাক্ষরিত এক প্রজ্ঞাপনে এসব সিদ্ধান্তের কথা জানানো হয়েছে।

সরকারের ১৮ দফা নির্দেশনার মধ্যে রয়েছে, সবধরনের জনসমাগম ও অপ্রয়োজনীয় চলাফেরা নিষিদ্ধ করা, মসজিদসহ সকল ধর্মীয় উপাসনালয়ে যথাযথ স্বাস্থ্যবিধি পরিপালন নিশ্চিত করা, পর্যটন, বিনোদনকেন্দ্র, সিনেমাহল, থিয়েটারহলে জনসমাগম সীমিত করা, গণপরিবহনের ধারণ ক্ষমতার অর্ধেক যাত্রী বহন ও স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলা, সংক্রমণের উচ্চ ঝুঁকিপূর্ণ এলাকাতে আন্তঃজেলা যান চলাচল সীমিত রাখা, প্রয়োজনে বন্ধ করে দেওয়া এবং বিদেশফেরতদের ১৪ দিনের প্রাতিষ্ঠানিক কোয়ারেন্টাইন নিশ্চিত করা।

টিকা প্রাপ্তিতে অনিশ্চয়তা

ওদিকে, করোনার টিকা প্রাপ্তি নিয়ে আশঙ্কার মাঝে স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেক বলেছেন, চুক্তি অনুযায়ী ভারতের সেরাম ইনস্টিটিউট থেকে সময়মতো কোভিড-১৯–এর টিকা না পেলে ‘অন্য’ পরিকল্পনা নেওয়া হবে। তবে অন্য পরিকল্পনাটি কী, তা তিনি বলেননি।

আজ সোমবার হৃদরোগ ইনস্টিটিউটের এক অনুষ্ঠানে ভার্চ্যুয়ালি যুক্ত হয়ে মন্ত্রী জানান, ‘এ মাসের টিকা আমরা পাইনি। প্রধানমন্ত্রী ভারতের প্রধানমন্ত্রীকে টিকার বিষয়ে বলেছেন। কোভ্যাক্সের টিকা পেতে মে-জুন মাস সময় লাগবে। টিকা পেতে দেরি হলে আমাদের অন্য পরিকল্পনা করতে হবে।’

সেরাম ইনস্টিটিউট থেকে অক্সফোর্ড-অ্যাস্ট্রাজেনেকার তিন কোটি ডোজ টিকা কেনার চুক্তি সরকার করলেও সম্প্রতি খবর আসে যে দেশের নিজস্ব চাহিদার কথা বিবেচনা করে ভারত টিকা রপ্তানি সাময়িকভাবে স্থগিত করেছে।

চুক্তি অনুযায়ী, জানুয়ারি থেকে শুরু করে পরবর্তী ছয় মাসে সেরাম ইনস্টিটিউট থেকে ৫০ লাখ করে তিন কোটি টিকা পাওয়ার কথা বাংলাদেশের।

প্রথম চালানে ৫০ লাখ টিকা এলেও দ্বিতীয় চালানে ২০ লাখ ডোজ অক্সফোর্ড-অ্যাস্ট্রাজেনেকার টিকা বাংলাদেশ পেয়েছে। ফলে সরবরা‌হে ঘাটতি থাকছে। এর বাইরে ভারত সরকার দুই দফায় ৩২ লাখ ডোজ টিকা উপহার দিয়েছে বাংলাদেশকে।

সব মিলিয়ে বাংলাদেশ পেয়েছে এক কোটি ২ লাখ ডোজ কোভিশিল্ড টিকা। আর এ পর্যন্ত ৫২ লাখ ডোজ টিকা দেওয়া হয়েছে। এই ৫২ লাখের সবাই টিকার প্রথম ডোজ নিয়েছেন, তাঁদের দ্বিতীয় ডোজ দিতে হবে, যা এপ্রিলের শুরুতে দেওয়া শুরু হবে।

আপনার মতামত লিখুন :